কলার থোড়ের উপকারিতা


কৃষি প্রতিবেদক

কলার গুণের কথা সকলেরই জানা আছে। কিন্তু কলার থোড়েও রয়েছে বিভিন্ন ধরনের ভিটামিনের উৎস। জেনে নিন কলার থোড়ের গুণাগুণ। থোড়ে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে আয়রন। থোড় হজম শক্তি বৃদ্ধি করতে সাহায্য করে। শরীর থেকে বিষাক্ত উপাদান দূর করে। শরীর ভেতর থেকে পরিষ্কার করে ও পেট পরিষ্কার রাখতে সাহায্য করে। নিয়মিত অন্ত্র থেকে মল অপসারণ সহজ করতে ও অন্ত্রের বর্জ্য আঁশ সরবরাহের মাধ্যমে হজমে সাহায্য করে থোড়। থোড়ে রয়েছে রয়েছে আঁশ অর্থাৎ ফাইবার। যেটা শরীরের কোষের জমে থাকা শর্করা ও চর্বি নিঃশ্বরন প্রক্রিয়াকে মন্থর করে থাকে। কোলেস্টেরল ও রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে থোড়। থোড়ে রয়েছে প্রচুর পরিমাণ ভিটামিন বি-৬। এছাড়াও রয়েছে পটাশিয়াম, লৌহ এবং রক্তে হিমোগ্লোবিন বাড়ানোর উপাদান। এসিডিটি ও গ্যাসের সমস্যাও দূর করতে পারে থোড়। নিয়মিত এসিডিটির সমস্যায় ভুগলে কলার থোড়ের সরবত খেতে পারেন। বুক জ্বালা পোড়া, অস্বস্থি, পেট জ্বালা পোড়া, এ ধরণের নানা রকম সমস্যা দূর করতে পারে থোড়। এছাড়াও গলব্লাডারকে পরিষ্কার রাখে ও কিডনিতে স্টোন জমতে দেয় না কলা গাছের থোড়। নিয়মিত থোড়ের রসে এলাচ গুঁড়ো মিশিয়ে খেতে পারলে গলব্লাডার পরিষ্কার থাকে। শিশুর ইউরিনের কোনো সমস্যা থাকলে থোড়ের রসে কয়েক ফোঁটা


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *